ইন্টারনেট এই মুহূর্তে আমাদের দেশে খুবই জনপ্রিয়। আপনি আপনার চারপাশে যে বিজ্ঞাপন গুলো আছে সেদিকে তাকালেই দেখবেন সব বিজ্ঞাপনগুলোর সাথে ওয়েবসাইট এর এড্রেস দেয়া থাকে। সেটা হতে পারে টেলিভিশন বিজ্ঞাপন, বাস এর সাথে বড় বিজ্ঞাপন, কোম্পানির ট্রাক অথবা ভ্যান এ বিজ্ঞাপন অথবা হতে পারে বড় বিলবোর্ড। আর এখন তো খেলার মাঠে বাউন্ডারি বিজ্ঞাপন এর ক্ষেত্রেও ওয়েবসাইট এর ঠিকানা দেয়া থাকে। ইন্টারনেট এর সহজলভ্যতার ফলে দিনে দিনে এর ব্যবহার বেড়েই চলেছে। তাই অনেক বড় বড় কোম্পানি তাদের ব্যবসা এবং বিপণন কৌশলের অংশ হিসাবে ইন্টারনেট ব্যবহার করছে।

আপনার একটি বিজনেস ওয়েবসাইট থাকলে ভার্চুয়াল ভাবে সবসময় আপনাকে পাওয়া যাবে। আজকাল মানুষ গবেষণার জন্য এনসাইক্লোপিডিয়ার পরিবর্তে উইকিপিডিয়া ব্যবহার করে, সঠিক দিক নির্দেশনার জন্য ছাপানো মানচিত্রের বদলে গুগল ম্যাপ ব্যবহার করে, ফোন বুক এর পরিবর্তে সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করে। তাই আপনি কেন বাকি থাকবেন। টেকনোলজির উন্নতির সাথে সাথে আপনার বিজনেসকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হলে আপনার কোম্পানির জন্য একটি ওয়েবসাইট অবশ্যই প্রয়োজন।

সম্প্রতি গবেষণায় দেখা গেছে যে, ৯৭% ক্রেতারা কোন প্রোডাক্ট অথবা সার্ভিস কেনার আগে গবেষণার জন্য ইন্টারনেট এ ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে খোঁজ করে।সেটা হতে পারে অনলাইন এ ক্রয় অথবা সামনাসামনি ক্রয়। (BIA/Kelsey, User View Wave VII, March 2010)

আপনার নিজের কথায় চিন্তা করুন…আজ থেকে কয়েক বছর আগে সকালে উঠে আপনি নিউজপেপার নিয়ে বসতেন। কিন্তু আজকে আপনি আপনার অফিসে ল্যাপটপ অথবা ডেস্কটপে বসে অনলাইন এ খবরের কাগজ পড়ছেন। তাও আবার একটা না, কমপক্ষে ৩ থেকে ৪ টা খবরের কাগজ ও ব্লগ এর উইন্ডো খোলা আছে। এখন সবাই জানে, “দিন বদলেছে”। এখনকার হাইপার কম্পেটিটিভ যুগে টিকে থাকতে হলে এমন কিছু আপনাকে চিন্তা করতে হবে যেন সেটা আপনার ব্যবসাকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যায়। সুন্দর ও মার্জিত একটি ওয়েবসাইট আপনার কোম্পানির সাফল্য কে তুরান্নিত করতে পারে।

একটি ভালো এবং প্রোফেসনাল ওয়েবসাইট আপনার ব্যবসা কে কিভাবে সামনের দিকে নিয়ে যায় তার কিছু পয়েন্ট দেয়া হল।

১. গ্রহণযোগ্যতা লাভঃ আজকাল অনেক ক্রেতারা যেকোনো প্রোডাক্ট এবং সার্ভিস সম্বন্ধে অনুসন্ধান করার জন্য ইন্টারনেট ব্যবহার করছে। একটি ওয়েবসাইট আপনার কোম্পানির বিশ্বাসযোগ্যতা পেতে সাহায্য করে এবং আপনার প্রদানকৃত প্রোডাক্ট অথবা সার্ভিস গুলোকে খুঁজে পেতে সাহায্য করে।

২. সেভ মানিঃ একটি নিউজপেপার বিজ্ঞাপনের খরচের তুলনায় একটি ওয়েবসাইট বানানোর খরচ অত্যন্ত নগণ্য। নিউজপেপার বিজ্ঞাপন আপনার টার্গেট কাস্টমার দের কাছে নাও পৌঁছতে  পারে, কিন্তু ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে পটেনশিয়াল মার্কেট এ যে কোন সময় এ পৌঁছানো যেতে পারে। একটি ওয়েবসাইট ইন্টারনেট এ আপনার সারাজীবন এর বিজ্ঞাপন হিসেবে কাজ করে।

৩. গ্রাহকদের অবগত রাখাঃ আপনার ওয়েবসাইটটিকে একটি প্রচারপত্র অথবা ক্যাটালগ হিসেবে চিন্তা করুন। ওয়েবসাইট এ আপনার পণ্য অথবা সেবা সম্বন্ধে তথ্য আপডেট করা অনেক অনেক সহজ, যেখানে প্রিন্ট অ্যাডভার্টাইজমেন্ট অথবা প্রিন্ট ম্যাটেরিয়ালস এ তথ্য আপডেট করাটা অনেক কষ্টসাধ্য। আপনি আপনার নতুন কোন পণ্য অথবা প্রমোশোন সম্বন্ধে ওয়েবসাইট এ খুব সহজেই আপডেট করে দিতে পারেন এবং তা খুবই অল্প সময়ের মধ্যে।

৪. ২৪/৭ – প্রবেশের অধিকারঃ ওয়েবসাইট এর মাধমে আপনার নিয়মিত এবং সম্ভাব্য গ্রাহক আপনার পণ্য ও পরিসেবা সম্বন্ধে অবগত হতে ও পর্যালোচনা করতে পারে 24/7/365. সেটা হতে পারে আপনার বিক্রয়কেন্দ্র খোলা অথবা বন্ধের দিনও।

৫. বড় মার্কেটকে টার্গেটঃ আপনি যে প্রোডাক্ট অথবা সার্ভিস ই বিক্রি করেন না কেন, আপনার ওয়েবসাইট যদি ই-কমার্স হয় তাহলে বিশ্বজুড়ে তা আপনি বিক্রয় করতে পারবেন ইন্টারনেট এর মাধ্যমে। আর আপনার ওয়েবসাইট একটি ভার্চুয়াল বিক্রয়কেন্দ্র হবে। ভুলে যাবেন না, গাড়ি এবং বাড়ি সবকিছুই এখন অনলাইন এ বিক্রি হয়।

৬. আপনার কাজ অথবা পোর্টফলিও প্রদর্শনঃ আপনি কি ধরনের ব্যবসা করছেন এটা কোন ব্যপার না। আপনি আপনার ওয়েবসাইট এ টেস্টিমোনিয়াল, ইমেজ গ্যালারী, ভিডিও গ্যালারী, পোর্টফলিও যোগ করে আপনি প্রমাণ করতে পারেন আপনি কেন অন্যদের থেকে আলাদা।

৭. সেভ টাইমঃ সাধারণভাবে গ্রাহকদের তথ্য প্রদান করা অনেক সময় সাপেক্ষ। প্রচারপত্র, ফোনকল, সামনাসামনি কথাবার্তা বলা অথবা একটি ইমেইল করতে অনেক সময় লেগে যায় একটি ইনফর্মেশন দিতে। কিন্তু ওয়েবসাইট থাকলে একটি ইনফর্মেশন আপনি একসাথে অনেক জনকে দিতে পারবেন।

৮. উন্নত গ্রাহক সেবাঃ একটি FAQ পেজ, একটি আর্টিকেল পেজ, ফিডব্যাক পেজ, নিউজলেটার আপলোড সহ সর্বোপরি গ্রাহক দের প্রশ্নের উত্তর এবং তাদের সাথে সরাসরি যোগাযোগ স্থাপন এর জন্য ওয়েবসাইট একটি গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম।

এতক্ষণে আপনি আমাদের সাথে নিশ্চয় একমত হবেন যে, ২০১২ সালে ব্যবসার জন্য একটি প্রোফেসনাল ও ইনফরমেটিভ ওয়েবসাইট অবশ্যই প্রয়োজন। একটি প্রোফেসনাল ওয়েবসাইট আপনার ব্যবসাকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে অনেক অনেক সাহায্য করে।

রূপকার – একটি ওয়েব ডিজাইন অ্যান্ড ওয়েব ডেভেলপমেন্ট স্টুডিও। আমরা ওয়েব ডিজাইন এবং ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর পাশাপাশি গ্রাফিক ডিজাইন এবং থ্রিডি মডেলিং ও অ্যানিমেশান পরিসেবা প্রদান করে থাকি। খুব অল্প সময় এর মধ্যে আমরা বাংলাদেশের অন্যতম বড় বড় কোম্পানির ওয়েব ডিজাইন এবং ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর কাজ করেছি। কিছু উদাহরণ হলঃ বসুন্ধরা গ্রুপ এর banglanews24 এর বাংলা ব্লগ, ফকির গ্রুপ এর Fakirknitwear এর ওয়েবসাইট নকশা ও উন্নয়ন, দেশী (deshi.com.bd)(একটি স্বতন্ত্র ও স্থাপত্য সংক্রান্ত কোম্পানি) ইত্যাদি এবং কিছু বড় কোম্পানির ওয়েবসাইটের কাজ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। Roopokar থেকে পরিসেবা পেতে এখানে ক্লিক করুন

২০১২ তে আপনার কোম্পানির কেন একটি ওয়েবসাইট প্রয়োজন?

Leave a Reply